মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১১ নভেম্বর ২০১৮

আমাদের সম্পর্কে

সরকারি/বেসরকারি অন্যান্য বিশেষায়িত উদ্যোগের পাশাপাশি সরকার দেশের বেকার যুবদের কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে ১৯৯৮ সনের ৭ নং আইন বলে কর্মসংস্থান ব্যাংক প্রতিষ্ঠা করেছে। প্রতিষ্ঠার পর হতে নানা সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও ব্যাংকের সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী দেশের বেকার যুবদের আত্মকর্মসংস্থানে নিজেদেরকে নিয়োজিত রাখার নিরলস প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

দেশের নানাবিধ অর্থনৈতিক সমস্যার মধ্যে বেকার সমস্যা অন্যতম প্রধান। বিভিন্ন পরিসংখ্যান অনুযায়ী দেশে প্রায় ৩.০০ কোটি লোক বেকার। এ বিপুল বেকার জনগোষ্ঠীর কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা সরকারের পক্ষে এককভাবে সম্ভব নয়। তা সত্ত্বেও দেশের প্রতিটি পরিবারে একজন সদস্যের আত্মকর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির মাধ্যমে দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্য সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। সরকারের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে কর্মসংস্থান ব্যাংক এ দেশের যুবসমাজের বেকারত্ব দূরীকরণের মাধ্যমে তাদের অর্থনৈতিক উন্নয়নে নিজেদেরকে আরো নিবিড়ভাবে সম্পৃক্ত করতে বিগত অর্থ-বছরে দেশব্যাপী ৩৩টি আঞ্চলিক কার্যালয় ও ২৪৫টি শাখার মাধ্যমে ব্যাংকের ঋণ কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

ব্যাংকের বর্তমান অনুমোদিত মূলধন ১০০০.০০ কোটি টাকা, পরিশোধিত মূলধন ৮০০.০০ কোটি টাকা এবং প্রকৃত পরিশোধিত মূলধন ৪৯৯.৫০ কোটি টাকা। বর্ণিত অর্থ দ্বারা ৩০.০৬.২০১৮ তারিখ পর্যন্ত পুঞ্জীভূতভাবে মোট ৪৭২৫.৫২ কোটি টাকা ঋণ বিতরণ এবং এর বিপরীতে ৪১৫৭.০৯ কোটি টাকা ঋণ আদায় করা হয়েছে। ঋণ আদায়ের হার ৯৫%। এ ঋণ সহায়তার মাধ্যমে প্রত্যক্ষভাবে ৫২৯৪৮৯ জন ঋণ গ্রহীতাসহ পরোক্ষভাবে ১৯১১৪৫৫ জনের কর্মসংস্থান হয়েছে। এছাড়া ব্যাংক আদায়যোগ্য ঋণ আদায়ের পাশাপাশি শ্রেণীকৃত ঋণের হারও সহনীয় পর্যায়ে রাখতে সক্ষম হয়েছে যা ৬% এবং এ শ্রেণীকৃত ঋণের বিপরীতে কোন প্রভিশন ঘাটতি নেই। মুনাফা অর্জন ব্যাংকের প্রাথমিক লক্ষ্য না হলেও নিয়ন্ত্রিত ব্যয় এবং নিবিড় তদারকীর মাধ্যমে ঋণ নগদে আদায় অব্যাহত রাখায় প্রতিষ্ঠার পর হতে প্রতি বছরই ব্যাংক মুনাফা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। ২০১৭-২০১৮ অর্থ-বছরে ব্যাংক ১.৭১ কোটি টাকা পরিচালনগত মুনাফা অর্জন করেছে।

ব্যাংক সরকারি কোষাগারে আয়কর বাবদ ৩০.০৬.২০১৮ তারিখ পর্যন্ত সর্বমোট ৬৯.৭৬ কোটি টাকা পরিশোধ করেছে। ব্যাংকের আর্থিক অবস্থান সুদৃঢ় ও দায় পরিশোধের লক্ষ্যে প্রতি বছরই রিজার্ভ সংরক্ষণ করেছে। এ রিজার্ভের পরিমাণ ৭৩.৮৪ কোটি টাকা। আলোচ্য অর্থ-বছরে ব্যাংক ৯২৩.২০ কোটি টাকা ঋণ বিতরণ করেছে যা বিগত অর্থ বছরের তুলনায় ৪৮% বেশী। 

৩০.০৬.২০১৮ তারিখে ব্যাংকের জনবল ১,৩১৯ জন । প্রতিটি প্রতিষ্ঠানের মূল চালিকা শক্তি তার দক্ষ জনবল। জনবলের দক্ষতা আনয়নে কর্মসংস্থান ব্যাংকে রয়েছে ১টি ট্রেনিং ইনস্টিটিউট। ট্রেনিং ইনস্টিটিউটে ২০১৭-২০১৮ অর্থ-বছরে ব্যাংকের  কর্মকর্তাদেরকে  বিভিন্ন বিষয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে।

কর্মী বাহিনীর সততা, একাগ্রতা ও নিষ্ঠাই অত্র প্রতিষ্ঠানের সাফল্য বয়ে এনেছে। প্রাথমিক পর্যায়ে ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ কিছু আর্থিক সুবিধা হতে বঞ্চিত হলেও বর্তমানে অন্যান্য সরকারি ব্যাংকের ন্যায় প্রায় সকল সুযোগ সুবিধা পাচ্ছে। যার ফলে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মনোবল, উৎসাহ-উদ্দীপনা বৃদ্ধি পেয়েছে এবং ব্যাংকের সমৃদ্ধি উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। ব্যাংকের নীতিমালা প্রণয়নের জন্য রয়েছে অভিজ্ঞ পরিচালনা বোর্ড এবং বোর্ডের সদস্যবৃন্দ মূলত: উচ্চ পদস্থ সরকারি অভিজ্ঞ কর্মকর্তা যাদের সহযোগিতায় ব্যাংকের নীতিমালা প্রণীত হয়ে থাকে এবং ব্যাংক পরিচলিনায় যথেষ্ট সহায়তা পাওয়া যায়। বোর্ড ব্যাংকের নীতি নির্ধারণ ও ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনায় যথাযথ পরামর্শ প্রদান করে আসছে যা এ সাফল্যের মূল নিয়ামক। সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় ব্যাংকের উন্নয়নের এ ধারা অব্যাহত থাকবে।

 

 


Share with :

Facebook Facebook